সামান্থার পেছনে সাত বছর ঘুরেছি: নাগা চৈতন্য

ভারতের দক্ষিণী সিনেমার জনপ্রিয় জুটি নাগা চৈতন্য-সামান্থা রুথ প্রভু। রিল লাইফের পাশাপাশি রিয়েল লাইফেও জুটি বেঁধেছিলেন তারা। তবে গত বছর রিয়েল লাইফ জুটি থেকে বেরিয়ে আসেন তারা। ৪ বছরের দাম্পত্য জীবনের ইতি টানেন নাগা-সামান্থা।

এ দুই তারকার ডিভোর্সের কারণ সম্পর্কে নানা গুঞ্জন শোনা গেছে। সামান্থা খোলামেলাভাবে পর্দায় হাজির হোক এটি নাকি চায়নি নাগার পরিবার। অন্যদিকে, এই অভিনেত্রী চাননি তার বিষয়ে কেউ হস্তক্ষেপ করুক। যদিও ডিভোর্সের প্রকৃত কারণ এখনো জানাননি নাগা কিংবা সামান্থা।

বিয়ের কয়েক বছর পর ভেঙেছে সামান্থা-নাগার সংসার। কিন্তু সামান্থাকে পেতে কাঠখড় কম পোহাতে হয়নি নাগা চৈতন্যকে। দীর্ঘ সাত বছর এ অভিনেত্রীর পেছনে ঘুরে মনে জায়গা পান নাগা। এক অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেছিলেন নাগা চৈতন্য। পুরোনো বিষয়টি ফের নতুন করে আলোচনায় উঠে এসেছে।

অনুষ্ঠানটির সঞ্চালক ছিলেন রাহুল রবীন্দ্র। তার সঙ্গে আলাপকালে নাগা চৈতন্য বলেন—‘‘দশ বছর আগে ‘ইয়ে মায়া চেসাভ’ সিনেমার শুটিং সেটে আমাদের দেখা হয়। পরের সাত বছর আমি আমার সেরাটা দিয়ে সামান্থাকে ইমপ্রেস করার চেষ্টা করি। কিন্তু তাকে বিয়ে করা ছাড়া আমার আর কোনো উপায় ছিল না।’

একই বিষয়ে সামান্থার কাছেও একই প্রশ্ন রেখেছিলেন রাহুল। জবাবে সামান্থা রুথ প্রভু বলেন, ‘ওই সময়ে নাগা চৈতন্য আরো অনেক মেয়েদের পেছনে ঘুরছিল এবং আমার টোকেন নাম্বার আসে সাত বছর পর।’

সামান্থা অভিনীত সর্বশেষ মুক্তিপ্রাপ্ত সিনেমা ‘যশোধা’। সুপারন্যাচারাল-থ্রিলার ঘরানার এ সিনেমা গত ১১ নভেম্বর কয়েকটি ভাষায় মুক্তি পেয়েছে।

আরও পড়ুন