ঢাবিতে জীবিত প্রাধ্যক্ষকে ‘মৃত’ বানিয়ে শোক বিজ্ঞপ্তি

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) সূর্যসেন হলের প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক মোহাম্মদ মকবুল হোসেন ভূঁইয়াকে ‘মৃত’ বানিয়ে হলের দেয়ালে ‘শোক বিজ্ঞপ্তি’ সাঁটানো হয়েছে।

শিক্ষার্থীদের বিভিন্ন সমস্যা সমাধানে প্রাধ্যক্ষ উদ্যোগী নন-এমন অভিযোগ তুলে হলের শিক্ষার্থীদের একটি অংশ এই বিজ্ঞপ্তি সাঁটিয়েছে বলে জানা গেছে।

এ ঘটনায় মর্মাহত হয়েছেন বলে জানিয়েছেন মকবুল হোসেন ভূঁইয়া। তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের ম্যানেজমেন্ট ইনফরমেশন সিস্টেমস বিভাগের অধ্যাপক।

সোমবার গভীর রাতে হলের দেয়ালে এই বিজ্ঞপ্তি দেখা যায়। তাতে প্রাধ্যক্ষের ছবি দিয়ে লেখা হয়, ‘ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মাস্টারদা সূর্যসেন হলের সম্মানিত প্রভোস্ট জনাব মকবুল হোসেন ভূঁইয়া ইন্তেকাল করেছেন। (ইন্না-লিল্লাহ…)।

‘তার অকাল প্রয়াণে মাস্টারদা’ সূর্যসেন হল পরিবার অত্যন্ত শোকাহত। মৃত্যুকালে তিনি ১ ছেলে, ১ মেয়ে এবং অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। শোকান্তেঃ মাস্টারদা সূর্যসেন হল পরিবার।’

এ ঘটনার প্রতিক্রিয়ায় অধ্যাপক মকবুল হোসেন ভূঁইয়া বলেন, ‘আমি এটাকে কী বলব। যদি কারো নামে এভাবে ছড়ানো হয়, তাহলে তার কেমন লাগবে। এটা কে লাগিয়েছে আমি জানার চেষ্টা করছি।’

এদিকে হলের একাধিক শিক্ষার্থীর সঙ্গে এ বিষয়ে কথা হয়। তাঁরা বলেন, ‘আমাদের হলে বিদ্যমান অনেক সমস্যা রয়েছে, যেগুলো হল প্রাধ্যক্ষের নজরে আনার পরেও কোনো পদক্ষেপ গ্রহণ করছেন না। তাই সাধারণ শিক্ষার্থীরা বিক্ষুব্ধ হয়ে এ কাজ করেছেন।’

এর আগে ২০২১ সালের ২৮ নভেম্বর অধ্যাপক মোহাম্মদ মকবুল হোসেন ভূঁইয়া ‘নিখোঁজ’ এমন একটি বিজ্ঞপ্তি ছেয়ে গিয়েছিল সারা ক্যাম্পাস।

আরও পড়ুন