সর্বশেষ সংবাদ

শৈশবে ফিরে গেলেন মাশরাফি, নদীতে বন্ধুদের সঙ্গে কাঁদা মাখামাখি

নড়াইলে বইছে তীব্র তাপদাহের সাথে গরম বাতাস। ৪১ থেকে ৪৩ ডিগ্রি তাপমাত্রায় বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে জনজীবন। এরই মাঝে পাঁচদিন ধরে নড়াইলে অবস্থান করছেন তারকা ক্রিকেটার জাতীয় সংসদ হুইপ ও নড়াইল-২ আসনের সংসদ সদস্য মাশরাফি বিন মর্তুজা। প্রচণ্ড গরম উপেক্ষা করে একের পর এক অনুষ্ঠানে যোগ দিয়েও ক্লান্তির লেস মাত্র নাই তার চেহারায়। এত আনুষ্ঠানিকতার মাঝেও বন্ধুদের সাথে আড্ডায় জমে উঠা নড়াইলের কৌশিকের নেশা।

মঙ্গলবার (৩০ এপ্রিল) পরপর দুটি মতবিনিময় সভা শেষ করে তপ্ত দুপুরের প্রচণ্ড খরতাপের মাঝেই হুট করে সিদ্ধান্ত লোহাগড়া যান মাশরাফি। নিজের গোছগাছ সেরে গাড়িতে চেপে বন্ধুদেরও উঠতে বললেন। কিছু না বললেই বা কি আসে যায় তার বন্ধুরাও যে তাকে ঢের চেনে।

গাড়ি ছুটে চলল, লোহাগড়া থেকে ডানে গ্রামের পথ বেয়ে ২৪ কিলোমিটার পাড়ি দিয়ে মাশরাফির গাড়ি বহর থামল উপজেলার ঘাঘা গ্রামের মধুমতি নদীর পাড়ে। ক্যাপ্টেন বরাবরের মতো সবার আগে নদীতে নামলেন, পেছনে বন্ধুর বহর। একে একে ঝাঁপিয়ে পড়লেন মধুমতি নদীর পানিতে। বন্ধু ও পার্সোনাল কর্মকর্তা জাহিদুল ইসলাম প্রটোকলের বেড়াজালে পাড়েই দাঁড়িয়ে রইলেন। কি আর করা ডাক এলো, সবাই নদীতে নামবেন। অগত্যা ব্যক্তিগত কর্মকর্তা, দেহরক্ষী সবারই নামতে হলো নদীর পানিতে।

পানিতে নেমেই ফুটবল নিয়ে বন্ধুদের উপর হামলে পড়া, সাঁতরে মাঝ নদীতে যাওয়া, বন্ধুদের ঘাড়ে উঠিয়ে চেলে ফেলা এ যেন কৈশরের কৌশিক সব ভুলে মেতেছেন ছেলেবেলার দুরন্তপনায়। ঘণ্টাব্যাপী পানির মধ্যে থেকেও কোথাও একটা কমতি মনে হলো কৌশিকের। বড় নদী সাঁতরে মাঝ নদীতে গিয়ে বন্ধুদের পার করা মাছ ধরা নৌকার গলুই ধরে ঝুলে বাকিটা নদী পার হয়ে উপরে বসেই একটু পানি পান করলেন। কিন্তু বসে থাকার জো তো আর নেই! বন্ধুরা দলবেঁধে হামলা বলেই কাঁদা ছুড়তে লাগলেন মাশরাফির দিকে। কিছুটা সামলেই পাল্টা নিজে কাদা হাতে বন্ধুদের উপর পাল্টা আক্রমণ চালান ম্যাশ। কাঁদা ছোটার প্রতিদানে কাঁদা মাখালেন বন্ধুদের আর সাথে বোনাস হিসাবে কয়েকটা চুবানি ও খেলেন তারা।

বন্ধুদের সবাইকে নিজের দেওয়া নাম ধরে ডেকে অন্যরকম তৃপ্তি অনুভব করেন ম্যাশ। এ তালিকায় স্নেহধন্য ছোট ভাই জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক স্বপ্নীল শিকদার নীলও বাদ পড়লেন না। নিজের দেওয়া নাম ধরে ডেকে অট্ট হাসিতে ফেটে পড়েন কৌশিক।

এভাবেই ৩ ঘণ্টাব্যাপী চলে ম্যাশের জলকেলি। নদী পাড়ে ইতোমধ্যেই হাজারো দর্শক জমায়েত হয়েছেন মাশরাফিকে দেখার জন্য। লুঙ্গি পড়ে একটি টি শার্ট গায়ে চেপেই আবার ছুটে চলা পরবর্তী সিডিউলের দিকে। সেটি দেখে কে বলবে এই অঞ্চলেরই টানা দুইবারের সংসদ সদস্য মাশরাফি।

গত ৭ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নড়াইল-২ আসন থেকে প্রতিদ্বন্দ্বীর চেয়ে ১ লাখ ৮৬ হাজার ৬১ ভোট বেশি পেয়ে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন মাশরাফি। এই আসন থেকেই ২০১৮ সালে প্রথমবার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছিলেন জাতীয় দলের সাবেক এই অধিনায়ক।

মাশরাফির জাতীয় দলের অধ্যায় শেষ হয়েছে অনেক আগেই। সর্বশেষ আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছেন ২০২০ সালে, জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে। তবে জাতীয় দলে না খেললেও খেলার মাঠ থেকে হারিয়ে যাননি মাশরাফি। নানা ব্যস্ততার ফাঁকেও খেলেছেন চলমান ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে (ডিপিএল)। লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জের হয়ে খেলা মাশরাফি এক ম্যাচে ৫ উইকেট নিয়ে দেখিয়েছেন বুড়ো হাড়ের ভেল্কিও।

আরও পড়ুন

যুক্তরাষ্ট্রে গিয়ে নতুন প্রেমের কথা স্বীকার করলেন সোহানা সাবা

লম্বা সময় ধরে সিঙ্গেল মাদার হিসেবেই সময় পার করছেন দুই পর্দার দর্শকপ্রিয় অভিনেত্রী সোহানা সাবা। ব্যক্তিগত জীবনে ভালোবেসে নির্মাতা মুরাদ পারভেজের সঙ্গে ঘর বেঁধেছিলেন...

গরুর ছবি প্রকাশের পর কত নোংরা নোংরা কথা শুনেছি: ভাবনা

সম্প্রতি একটি গরুর ছবি পোস্ট করেছিলেন অভিনেত্রী আশনা হাবিব ভাবনা। সেই ছবির ক্যাপশন দিয়েছিলেন, আমার কান্নার শব্দ কি শোনা যায় তোমার শহরে? এই ছবিটি...

সেরা পঠিত